আজ ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৭শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

সময় : রাত ১১:৫৬

বার : শুক্রবার

ঋতু : গ্রীষ্মকাল

‘ম্যাডামের অসুস্থতা নিয়ে যারা ব্যঙ্গ করেন, আল্লাহ তাদের সঠিক বুঝ দিন’

‘ম্যাডামের অসুস্থতা নিয়ে যারা ব্যঙ্গ করেন, আল্লাহ তাদের সঠিক বুঝ দিন’

এভারকেয়ার হাসপাতালে বিভিন্ন স্বাস্থ্য পরীক্ষা শেষে তার চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, খালেদা জিয়া অসুস্থ। সুস্থতার জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন তিনি। বুধবার (৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে গুলশানের বাসায় আনার পর তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক অধ্যাপক এজেডএম জাহিদ হোসেন এসব কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘যে মানুষটি আলিয়া মাদ্রাসায় হেঁটে হেঁটে গিয়েছেন, সেই মানুষটি আজকে চার বছরের মাথায়, গত ২০২০ সালের ২৫ মার্চ থেকে হুইল চেয়ার বাউন্ড হয়েছেন। একজন হাঁটা মানুষ যদি হুইল চেয়ারে চলেন, তিনি ভালো আছেন?’

জাহিদ হোসেন বলেন, ‘যে মানুষটি আপনার এভারকেয়ার হসপিটালে তিনটি অকেশনে প্রায় ছয় মাস ভর্তি থেকেছেন, অনেকে অনেক কথা বলেন। আজকের বাস্তবতা হচ্ছে উনি (খালেদা জিয়া) অসুস্থ।উনার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। আপনারা সবাই দোয়া করবেন উনি যাতে সুস্থ হয়ে ওঠেন। উনি নিজেও দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন।’

চিকিৎসক জাহিদ বলেন, ‘অসুস্থ মানুষের অসুস্থতা নিয়ে যারা ব্যঙ্গ করেন, যারা কথা বলেন, তাদেরকে বুঝ দেওয়ার ক্ষমতা আল্লাহ রাব্বুল আ‘লামীন দিতে পারেন, আমাদের পক্ষে এটা সম্ভব না। উনি অসুস্থ যদি না-ই হতেন, আজকেই বা উনার মেডিক্যাল চেকআপের কী প্রয়োজন ছিল।’

ডা. জাহিদ বলেন, ‘মেডিক্যাল বোর্ড এমনকি জিনিস উনার উপলব্ধি করলেন যে, উনার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা প্রয়োজন। সেই জন্য কিন্তু উনাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।’

পরীক্ষার রিপোর্টগুলো পেলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

মেডিক্যাল বোর্ডের সুপারিশে উন্নত চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়াকে বিদেশে পাঠাতে সরকার কোনও ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন এই চিকিৎসক।

বুধবার বিকাল পৌনে ৪টায় গুলশানের ‘ফিরোজা’ থেকে বসুন্ধরার এভারকেয়ার হাসপাতালে যান খালেদা জিয়া। সেখানে রেডিওলজিক্যাল পরীক্ষা, ইমেজিং, ব্লাড ও ইউরিন পরীক্ষা, লিভার ফাংশন টেস্ট, কিডনি ফাংশন টেস্ট, হার্টের টেস্ট প্রভৃতি নিরীক্ষা শেষে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার পর বাসায় ফেরেন বিএনপি চেয়ারপারসন।

গুলশানের বাসার সামনে  সংবাদ ব্রিফিংয়ে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আমান উল্লাহ আমান, সহ প্রচার সম্পাদক শামীমুর রহমান শামীম, মহানগর সদস্য সচিব আমিনুল হক, যুবদলের সুলতান সালাহউদ্দিন টুকু, এসএম জাহাঙ্গীর, খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসক আল মামুন প্রমুখ নেতা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     More News Of This Category